ঢাকা, মঙ্গলবার, ২৭শে সেপ্টেম্বর, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ , ১২ই আশ্বিন, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ

লিটন না পারলেও পেরেছেন মুশফিক

প্রকাশ: ২৪ মে, ২০২২ ৬:০১ : পূর্বাহ্ণ

প্রথম দিনের দুঃস্বপ্নের সকালটা ফিরে এল দ্বিতীয় দিনেও। তিন বলের ব্যবধানে আউট হয়েছেন লিটন দাস আর মোসাদ্দেক হোসেন সৈকত। দ্রুত দুই উইকেট হারিয়ে কিছুটা হলেও চাপে পড়েছে বাংলাদেশ। এখনো উইকেটে আছেন আগের দিনের অপরাজিত সেঞ্চুরিয়ান মুশফিকুর রহিম। তাঁর সঙ্গী তাইজুল ইসলাম। এ প্রতিবেদন লেখা পর্যন্ত বাংলাদেশের সংগ্রহ ৭ উইকেটে ৩৪৩ রান।

গতকালের মহাকাব্যিক জুটিটা আরও এগিয়ে নেওয়ার সুযোগ ছিল মুশফিকুর রহিম-লিটনের সামনে। সেটা আর হলো না। ২৫৩ রানের জুটির সঙ্গে আর ১৯ রান যোগ করে জুটি ভাঙে লিটনের বিদায়ে। আগের দিন শ্রীলঙ্কার সেরা বোলার কাসুন রাজিথাই এগিয়ে আসলেন দলকে ম্যাচে ফেরাতে। তাঁর বলে স্লিপে থাকা কুশল মেন্ডিসের হাতে ক্যাচ দিয়ে ফেরেন লিটন (১৪৫)। তৃতীয় সেঞ্চুরির পর ক্যারিয়ারের প্রথম ১৫০ রানের ইনিংসের মাইলফলক থেকে ৯ রান দূরে থাকতে আউট হন এ কিপার-ব্যাটার।

মোসাদ্দেককে ফিরিয়ে ৫ উইকেট পূর্ণ করেন রাজিথা

 

তবে লিটন না পারলেও ঠিকই ১৫০ রানের কোটা পেরিয়েছেন মুশফিক। রমেশ মেন্ডিসের বলটা ফাইন লেগে ঠেলে দিয়ে দুই রান নেন মুশি। ১৪৯ থেকে পোঁছে যান ১৫১ রানে। টেস্টে এ নিয়ে পাঁচবার দেড়শ পেরোনো ইনিংস উপহার দিলেন বাংলাদেশের ব্যাটিংয়ের ভরসার প্রতীক। লিটন ১৫০ করতে না পারার আক্ষেপে পুড়লেও আরেকটি জায়গায় তৃপ্ত হতেই পারেন। আউট হওয়ার আগে মাহমুদউল্লাহ রিয়াদের রেকর্ড নিজের করে নিয়েছেন তিনি। টেস্টে সাত নম্বরে নেমে বাংলাদেশের হয়ে সর্বোচ্চ ব্যক্তিগত ইনিংস এখন তাঁর। ২০১৮ সালের নভেম্বরে মিরপুরেই ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে ১৩৬ রানের ইনিংস খেলেছিলেন মাহমুদউল্লাহ। এত দিন সেটিই ছিল সর্বোচ্চ।

মোসাদ্দেককে ফিরিয়ে ৫ উইকেট পূর্ণ করেন রাজিথা। ছবি: আজকের পত্রিকালিটনকে ফেরানোর তিন বল পরেই উইকেটকিপার নিরোশান ডিকভেলার গ্লাভসবন্দী হন মোসাদ্দেক। তিন বছর পর টেস্ট একাদশে ফেরাটা সুখকর হয়নি তাঁর। শূন্য হাতেই ফিরতে হয় ড্রেসিংরুমে। মোসাদ্দেককে ফিরিয়ে প্রথমবার ৫ উইকেটে পাওয়ার উচ্ছ্বাসে ভাসেন কাসুন। টেস্টে এর আগে বাংলাদেশের বিপক্ষে শ্রীলঙ্কান কোনো পেসারের ইনিংসে ৫ উইকেট নেওয়ার নজির ছিল শুধু দিলহারা ফার্নান্দোর। চট্টগ্রাম টেস্টে কনকাশন বদলি হিসেবে নেমে বাংলাদেশকে ভুগিয়েছেন কাসুন। ঢাকা টেস্টে শুরুর একাদশে সুযোগ পেয়ে সেই পারফরম্যান্সকেও ছাড়িয়ে গেছেন দীর্ঘদেহী রাজিথা।

Print Friendly and PDF
ব্রেকিং নিউজঃ